পাচ হাজার টাকা ট্রাফিক ফাইন এক হাজার টাকায় নিষ্পত্তি করে হাসি ফুটলো উপভোক্তার মুখে

পাচ হাজার টাকা ট্রাফিক ফাইন এক হাজার টাকায় নিষ্পত্তি করে হাসি ফুটলো উপভোক্তার মুখে। কম খরচে ট্রাফিক ফাইন নিষ্পত্তি করতে ভিড় উপচে পড়লো লোক আদালতে।

জলপাইগুড়ি জেলা আইনি পরিষেবা কর্তৃপক্ষের পরিচালনা ও ব্যবস্থাপনায় সদর ট্রাফিক পুলিশের সহযোগিতায় লোক আদালত অনুষ্ঠিত হল রবিবার।

এদিন জলপাইগুড়ি সদর, রাজগঞ্জ, মাল ও ময়নাগুড়ি এই চারটি ট্রাফিক থানার প্রায় ১০০০ টি ট্রাফিক ফাইন সংক্রান্ত প্রাক মামলা নিষ্পত্তির জন্য এই মোবাইল লোক আদালতের আয়োজন বলে জানা গিয়েছে।

এদিনের লোক আদালতে উপস্থিত ছিলেন আইনি পরিষেবা কর্তৃপক্ষের সচিব বিচারক বসন্ত শর্মা, আইনজীবী ছোটু রায়, সদক ট্রাফিক ওসি বাপ্পা সাহা, হাইওয়ে ওসি সুজিত মিত্র সহ অন্যান্য পুলিশকর্মীরা।

ঘটনায় আইনি পরিসেবা কর্তৃপক্ষর সচিব বিচারক বসন্ত শর্মা বলেন এই ধরনের লোক আদালত মাঝেমধ্যে বসার কথা। এরফলে মানুষ প্রচুর সুবিধা পেয়ে থাকে। কিন্তু করোনা মহামারীর কারনে প্রায় দু বছর কাজ করা সম্ভব হয়নি। আশাকরি আজ প্রচুর মামলার নিষ্পত্তি হবে।

ঘটনায় সফিকুল রহমান নামে এক ড্রাইভার জানালেন তার গাড়ির কাগজ পত্র ঠিক না থাকায় তাকে পাচ হাজার টাকা ফাইন করেছিল। আজ লোক আদালতের মাধ্যমে সেই ফাইন তিনি এক হাজার টাকায় মিটিয়ে নিতে পেরে খুব খুশি।

ঘটনায় সদর ট্রাফিক ও সি বাপ্পা সাহা বলেন ট্রাফিক ফাইন সংক্রান্ত মামলা নিষ্পত্তি করতে আজকে এই লোক আদালতের আয়োজন করা হয়েছে। এখানে জেলার চারটি ট্রাফিক থানা থেকে প্রায় এক হাজার ফাইনের কেস নিষ্পত্তি হোলো।

Leave a Reply

Your email address will not be published.